কোথায় পিপিই? দিব্যি খালি হাতে করোনা আক্রান্তের মৃতদেহ বহন করছে শ্মশান কর্মীরা



Odd বাংলা ডেস্ক: দিল্লিতে করোনায় আক্রান্ত মৃত দেহ সৎকারে ২৪ ঘণ্টা জ্বলছে চুল্লি-চিতা। শ্মশানে দেখো গেছে জমে থাকা লাসের স্তুূপ। কিন্তু এই সব কিছুর মাঝে নজর কেড়েছে অন্য ঘটনা।



মৃতদেহ সৎকারের ক্ষেত্রে মানা হচ্ছে না কোনও নিয়ম। পিপিই কিট তো নেই। এমন কি গ্লাভস, এন ৯৫ মাস্ক ছাড়া মৃতদেহ সৎকার করছে শ্মশানের কর্মীরা।



শুধু কাঠের চিতাতেই এটা হচ্ছে তা নয়। ইলেক্টিক চুল্লি যেখানে রয়েছে সেখানেও একই অবস্থা। কোনও নিয়ম মানা হচ্ছে না।



শহরের প্রাণকেন্দ্র লালকেল্লা সংলগ্ন এলাকাতে অবস্থিত হওয়ায় বিভিন্ন হাসপাতালের মর্গ থেকে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক মৃতদেহ আসে নিগম বোধ শ্মশান ঘাটে।



 ২৪ ঘণ্টা শ্মশান খুলে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে নিগম বোধ কর্তৃপক্ষ। ছ’টির মধ্যে তিনটি বৈদ্যুতিক চুল্লি কাজ করছে সেখানে। গত সপ্তাহে কাঠের চিতাতেও করোনায় মৃতদের তোলার অনুমতি দেওয়া হয়েছে।



কিন্তু এই সব কিছুর মাঝে যেভাবে নিয়ম অমান্য করছে শ্মশান কর্মীরা তাতে আরও দ্রুত ছড়িয়ে পড়বে করোনা। 
কোথায় পিপিই? দিব্যি খালি হাতে করোনা আক্রান্তের মৃতদেহ বহন করছে শ্মশান কর্মীরা কোথায় পিপিই? দিব্যি খালি হাতে করোনা আক্রান্তের মৃতদেহ বহন করছে শ্মশান কর্মীরা Reviewed by Odd Bangla Editor on June 28, 2020 Rating: 5
Powered by Blogger.